২২শে অক্টোবর, ২০১৯ ইং, বুধবার

সিপিএলের প্রথম ম্যাচেই সাকিব দেখালেন তার নৈপুণ্য

আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের অলরাউন্ড নৈপুণ্য সত্ত্বেও ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল) টি-২০ ক্রিকেটে হারের স্বাদ পেতে হলো বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসকে।

বাংলাদেশ সময় অনুযায়ী রবিবার অনুষ্ঠিত হওয়া তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ ম্যাচে সেন্ট কিটস এন্ড নেভিস প্যাট্রিওটসের কাছে মাত্র ১ রানে হেরেছে বার্বাডোজ। এবারের সিপিএলে এটিই সাকিবের প্রথম ম্যাচ।

নিজেদের মাঠে টস হেরে প্রথমে ফিল্ডিং করতে নামে বার্বাডোজ। বল হাতে বার্বাডোজের হয়ে ইনিংস শুরু করেন সাকিব। প্রথম ওভারেই কোন রানই দেননি তিনি। দ্বিতীয় ওভারে ৪ রান দেন সাকিব।

এরপর নবম ওভারে দ্বিতীয় স্পেলে বল করতে আসেন সাকিব। রান দেন ৬টি। প্রথম তিন ওভারে কোন উইকেট না পেলেও, নিজের চতুর্থ ও শেষ ওভারে উইকেট শিকারের স্বাদ নেন সাকিব।

ইনিংসের ১৭তম ওভারে ও নিজের তৃতীয় স্পেলের প্রথম বলেই সেন্ট কিটসের অধিনায়ক ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েটকে এলবিডব্লু করেন তিনি। এ ওভারে দেন মোট ৪ রান। সব মিলিয়ে ম্যাচে সাকিবের বোলিং ফিগার ৪ ওভারে ১ মেডেন ১৪ রানে ১ উইকেট।

আর পুরো ২০ ওভার ব্যাট করে ৭ উইকেটে ১৪৯ রান করে সেন্ট কিটস। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৩ বলে ৬টি চার ও ২টি ছক্কায় ৩৩ বলে ৫৩ রান করেন সামারাহ ব্রুকস।

জবাবে দলীয় ১৫ রানে প্রথম উইকেট হারায় বার্বাডোজ। এরপর তিন নম্বরে ব্যাট হাতে নামেন সাকিব। মারমুখী মেজাজে রান তুলেছেন তিনি। তাই ১১ ওভারেই ২ উইকেটে ৮৩ রান পেয়ে যায় বার্বাডোজ। তবে ১২তম ওভারে সাকিব ফিরে গেলে, পরের দিকের ব্যাটসম্যানরা দায়িত্ব নিয়ে খেলতে পারেননি।

তবে শেষদিকে রেমন রেইফার ৩টি ছক্কায় ১৮ বলে ৩৪ রান করে দলের জয়ের আশা জাগিয়েছিলেন। তবে জয় থেকে ৩ রান দূরে থাকতে রেইফার নবম ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হলে, ১৪৮ রানেই গুটিয়ে যায় বার্বাডোজ। ৩টি চার ও ১টি ছক্কায় ২৫ বলে ৩৮ রান করেন সাকিব।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন